দেশ-বিদেশ

অরিজিৎসিংহের সুর চুরি!

নরসুন্দা ডটকম   December 19, 2018

ভারতের খ্যাতিমান সংগীত শিল্পী অরিজিৎ সিংহের গাওয়া বিখ্যাত বলিউড গানের সুর চুরির অভিযোগ উঠল বিখ্যাত আমেরিকান র‌্যাপার টি-পেইনের বিরুদ্ধে।

তাঁর সম্পাদিত ‘দ্যাটস ইয়ো মানি’ নামে একটি র‌্যাপ সম্প্রতি প্রকাশিত হয়েছে। সেই র‌্যাপেই হিন্দি গানের সুর চুরির অভিযোগ উঠেছে। এরপরই নেটিজেনদের সমালোচনার মুখে পড়েছেন বিখ্যাত আমেরিকার র‌্যাপার।

মঙ্গলবার সোশ্যাল মিডিয়ার বিভিন্ন প্ল্যাটফর্মে প্রকাশিত হয়েছে টি-পেইনের নতুন র‌্যাপ গান ‘দ্যাটস ইয়ো মানি’। সেই র‌্যাপের একটি অংশের সুর জনপ্রিয় হিন্দি গান ‘তুম হি হো’-র সুরের সঙ্গে হুবহু এক। সে জন্যই ওই র‌্যাপ নিয়ে পেইনকে সমালোচনায় বিদ্ধ করেছেন নেটিজেনরা।

বলিউড সিনেমা ‘আশিকি ২’-এর ‘তুম হি হো’ গানটি গেয়েছিলেন অরিজিত্ সিংহ। এই গানটি মুক্তি পেয়েছিল ২০১৩ সালে। গানটি কম্পোজ করেছিলেন মিঠুন শর্মা।

‘দ্যাটস ইয়ো মানি’ গানটি টুইটারে পোস্ট করার পরেই পেইনকে মিঠুন মনে করিয়ে দেন তাঁর তৈরি গানের কথা। পেইনের গানটি রিটুইট করে মিঠুন লিখেছেন, ‘স্যার, আপনার নতুন গানে ব্যবহৃত সুরটি আসলে আমার তৈরি হিন্দি গানের। ব্যাপারটা একটু দেখবেন।’

এর পরই একের পর এক কমেন্টে বিদ্ধ হন পেইন। সুর নকলের অভিযোগ ওঠায়, শেষমেশ গানটির লিঙ্ক টুইটার থেকে সরিয়ে নিয়েছেন তিনি। টি-পেইনের অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেল থেকেও সরিয়ে নেওয়া হয়েছে ভিডিয়োটি। যদিও অন্যান্য চ্যানেলের দৌলতে ‘তুম হি হো’-র সুর চুরি করা ‘দ্যাটস ইয়ো মানি’ ঘুরে বেড়াচ্ছে ইউটিউবে।

…………………………………………………………..

আরো পড়ুন…

গৌতম অধিকারী’র তিনটি কবিতা

এই ডিজিটাল দুষ্কর্মের বিরুদ্ধে ক্ষোভ ও একটি দাবি : হাসানুজ্জামান সাকী

…………………………………………………………………………………………

অরিজিৎ সিংকে বর্তমান বলিউড সংগীতের বাদশা বলে মনে করেন অনেকেই। ২০০৫ সালে টেলিভিশন রিয়ালিটি শো ফেম গুরুকুল থেকে তাঁর উত্থান। আর এখন তাঁর কণ্ঠ জয় করেছে শ্রোতাদের হৃদয়। নিচে রইল অরিজিৎ সিং সম্পর্কে ১০টি তথ্য যা হয়ত অনেকেই জানেন না :

১. হাই স্কুল মিউজিকাল ২ (২০০৭) নামের ফিল্মের অল ফর ওয়ান গানটি সিনেমা জগতে অরিজিতের প্রথম গাওয়া গান। ফিল্মটির সংগীত পরিচালক ছিলেন শঙ্কর-এহসান-লয়।

২. অরিজিৎ ক্লাসিকাল সংগীতের তালিম নিয়েছেন গুরু রাজেন্দ্রপ্রসাদ হাজারির কাছে, তবলা শিখেছেন ধীরেন্দ্রপ্রসাদ হাজারির কাছে, আর লোকসংগীত শিখেছেন বীরেন্দ্রপ্রসাদ হাজারির কাছে।

৩. গানের পাশাপাশি সাইকেল চালানো, ফটোগ্রাফি, আর বাংলা গল্প-উপন্যাসের প্রতি যথেষ্ট আগ্রহ রয়েছে অরিজিতের।

৪. গুলাম আলি, মেহেদি হাসান, আর জগজিৎ সিং অরিজিতের প্রিয় গায়ক।

৫. সংগীত জীবনের প্রথম দিকে প্রীতম, শঙ্কর-এহসান-লয়, বিশাল-শেখর, মিঠুনের মতো সংগীত পরিচালকের সহকারী হিসেবে কাজ করেছেন অরিজিৎ।

৬. বলিউডে অরিজিতের অভিষেক ঘটে মিঠুনের সুরে ‘মার্ডার টু‘-এর ‘ফির মহব্বত’ গান দিয়ে।

৭. ২০১৪ সালে নিজের ছোটবেলার বান্ধবী কোয়েল রায়কে বিয়ে করেন অরিজিৎ। এটি ছিল তাঁর দ্বিতীয় বিবাহ।

৮. বেশ কিছু টেলিভিশন শো-এর জন্যও গান গেয়েছেন অরিজিৎ। সেগুলির মধ্যে ‘দাদাগিরি’ বা ‘তোমায় আমায় মিল’-এর মতো বাংলা টিভি সিরিজও রয়েছে।

৯. নিজের গাড়িতে চড়ার বদলে, এখনও আর পাঁচটা সাধারণ মানুষের মতো পাবলিক ট্রান্সপোর্টে যাতায়াত করতে ভালোবাসেন অরিজিৎ।

১০. অরিজিতের স্বপ্ন হলো সালমান খানের প্রোডাকশন হাউজের হয়ে কাজ করা এবং বিশাল ভরদ্বাজ পরিচালিত কোনো ছবিতে গান গাওয়া।। সূত্র: কালের কন্ঠ ও আনন্দবাজার পত্রিকা।

নরসুন্দা ডট কম

About the author

নরসুন্দা ডটকম